ঢাকা, বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪ আশ্বিন ১৪২৫


মার্জিনে ফিরেছে আলিফ ইন্ড্রাষ্টিজের শেয়ার

২০১৮ মার্চ ১৪ ০৮:১২:২২

বিজনেস আওয়ার: ক্যাটাগারি পরিবর্তনের কারণে ৩০ কার্যদিবস নন-মার্জিন শেয়ার হিসাবে লেনদেন করার পর আজ (১৪ মার্চ বুধবার) থেকে মার্জিনে ফিরছে আলিফ ইন্ড্রাষ্টিজ লিমিটেড (এআইএল)। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সূত্রে জানা যায়, গত ২৯ জানুয়ারী হতে ‘এন’ ক্যাটাগরি হতে ‘এ’ ক্যাটাগরিতে উন্নীত হয়ে নন-মার্জিন বা অঋণযোগ্য শেয়ার হিসাবে আলিফ ইন্ড্রাষ্টিজের লেনদেন শুরু হয়। গতকাল (১৩ মার্চ মঙ্গলবার) ‘এ’ ক্যাটাগরিতে কোম্পানিটির লেনদেন ৩০ কার্যদিবস পূর্ণ হয়েছে বিধায় আজ বুধবার হতে কোম্পানিটির শেয়ার মার্জিনেবল বা ঋণযোগ্য শেয়ার হিসাবে গণ্য হবে।

এর আগে ৩০ জুন ২০১৬ হিসাব বছরের জন্য আলিফ ইন্ডাষ্ঠ্রিজ ১০ শতাংশ নগদ এবং ২৫ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ প্রদান করে। ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের বিও একাউন্টে বিতরণ করায় কোম্পানিটিকে ‘এ’ ক্যাটাগরিতে উন্নীত করা হয়। সমাপ্ত হিসাব বছরে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ২ টাকা ৯ পয়সা।

কোম্পানির আর্থিক প্রতিবেদনে দেখা যায়, চলতি হিসাব বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে (অক্টোবর-ডিসেম্বর’১৭) এর ইপিএস হয়েছে ১ টাকা ৩৯ পয়সা। আগের বছর একই সময়ে ইপিএস ছিল ৭৫ পয়সা। ইপিএস বেড়েছে ৬৪ পয়সা বা ৮৫.৩৩ শতাংশ।

অন্যদিকে, চলতি হিসাব বছরের দুই প্রান্তিকে (জুলাই-ডিসেম্বর’১৭) কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ২ টাকা ৪ পয়সা। এর আগের বছরের একই সময়ে ইপিএস ছিল ১ টাকা ৩১ পয়সা। ইপিএস বেড়েছে ৭৩ পয়সা বা ৫৫.৭২ শতাংশ।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা যায়, গত বছর ২৮ ডিসেম্বর ওটিসি মার্কেটে লেনদেন করা সজিব নিটও্যয়ার আলিফ ইন্ডাষ্ট্রিজ নামে মূল মার্কেটে লেনদেন শুরু করে। মুল মার্কেটে অভিষেকের দিন কোম্পানিটির শেয়ার দর ছিল ১৪৩ টাকা। মূল মার্কেটে আসার পর এর শেয়ারদর ছিল সর্বেচ্চ ১৫৭ টাকা ৩০ পয়সা এবং সর্বনিম্ন ৮৮ টাকা।

গতকাল কোম্পানিটির শেয়ারের ক্লোজিং প্রাইস দাঁড়ায় ৯৪ টাকা। সেই হিসাবে কোম্পানিটির বর্তমান মূল্য আয় অনুপাত (পিই রেশিও) ২৪.০৪।

উল্লেখ্য, আলিফ ইন্ডাষ্ট্রিজের মোট শেয়ার সংখ্যা ৩ কোটি ৭৫ লাখ ৭৭ হাজার। এরমধ্যে উদ্যোক্তা পরিচালকদের কাছে রয়েছে ৬০.৪৫ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ১৭.৪০ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ২২.১৫ শতাংশ শেয়ার।


বিজনেস আওয়ার/এসএম





উপরে