ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ জুন ২০১৮, ৭ আষাঢ় ১৪২৫


অধিকাংশ ব্যাংকের ইপিএসে পতন

২০১৮ মে ০৩ ১০:৩১:৫৪

রেজোয়ান আহমেদ : আগের বছরের তুলনায় ২০১৭ সালের ব্যবসায় শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৫৩ শতাংশ ব্যাংকের শেয়ারপ্রতি মুনাফা (ইপিএস) কমেছে। কোন ব্যাংকের এ মুনাফা ৯৮ শতাংশ পর্যন্ত কমেছে। ব্যাংকের এমন পতনকে শেয়ারবাজারের জন্য দুঃসংবাদ বলে মনে করেন বাজার সংশ্লিষ্টরা।

ব্যাংকগুলোর ২০১৭ সালের সমন্বিত হিসাব বিশ্লেষণে এমন তথ্য পাওয়া গেছে।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সাবেক সভাপতি শাকিল রিজভী বিজনেস আওয়ারকে বলেন, গত বছর ঋণ কেলেঙ্কারীতে ব্যাংকগুলোর মুনাফায় নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। যা শেয়ারবাজারের জন্য দুঃসংবাদ। তবে এ সমস্যা কাটিয়ে উঠতে বাংলাদেশ ব্যাংকের আরও কঠোরভাবে ঋণের বিষয়টি নিয়ন্ত্রন করা দরকার বলে মনে করেন তিনি।

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৩০টি ব্যাংকের মধ্যে আগের বছরের তুলনায় ২০১৭ সালে ১৬টি বা ৫৩ শতাংশ ব্যাংকের ইপিএস কমেছে। এরমধ্যে সবচেয়ে বেশি ইপিএস কমেছে এবি ব্যাংকের। ব্যাংকটির ৯৮ শতাংশ ইপিএস কমেছে। এরপরে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৫২ শতাংশ কমেছে সাউথইস্ট ব্যাংকের। আর ৪৯ শতাংশ লোকসান বেড়ে ৩য় স্থানে রয়েছে আইসিবি ইসলামীক ব্যাংক।

এদিকে সবচেয়ে বেশি ইপিএস হয়েছে ডাচ-বাংলা ব্যাংকের। আগের বছরের থেকে ৩৯ শতাংশ বেড়ে ব্যাংকটির ইপিএস হয়েছে ১২.২৮ টাকা। এরপরে ব্র্যাক ব্যাংকের ইপিএস হয়েছে ৬.০৭ টাকা, সিটি ব্যাংকের ৩.৯০ টাকা, মার্কেন্টাইল ব্যাংকের ৩.৮৯ টাকা, মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের ৩.৮৯ টাকা, উত্তরা ব্যাংকের ৩.৮৩ টাকা, ওয়ান ব্যাংকের ৩.৬০ টাকা, যমুনা ব্যাংকের ৩.৩৮ টাকা, আল-আরাফাহ ব্যাংকের ৩.১৫ টাকা, ট্রাস্ট ব্যাংকের ৩.১৪ টাকা ও ইসলামী ব্যাংকের ৩.০৬ টাকা হয়েছে। ২০১৭ সালে এই ১১টি ব্যাংকের ইপিএস ৩ টাকার বেশি হয়েছে।

নিম্নে ইপিএস হ্রাস পাওয়া ব্যাংকগুলোর আর্থিক অবস্থা তুলে ধরা হল।

ব্যাংকের নাম

২০১৭ সালের ইপিএস (টাকা)

২০১৬ সালের ইপিএস (টাকা)

কমার হার

এবি ব্যাংক

০.০৫

৯৮%

সাউথইস্ট ব্যাংক

১.২৭

২.৬৬

৫২%

আইসিবি ইসলামিক ব্যাংক

(০.৬১)

(০.৪১)

৪৯%

প্রাইম ব্যাংক

১.১৮

২.১৩

৪৫%

স্যোশাল ইসলামী ব্যাংক

১.৯৮

৩.১০

৩৬%

ন্যাশনাল ব্যাংক

২.০২

২.৮৪

২৯%

শাহজালাল ইসলামি ব্যাংক

১.৭৪

২.২৬

২৩%

ট্রাস্ট ব্যাংক

৩.১৪

৩.৯৮

২১%

আইএফআইসি ব্যাংক

২.৩৪

২.৮১

১৭%

দি সিটি ব্যাংক

৩.৯০

৪.৬৪

১৬%

ইস্টার্নব্যাংক

৩.২৯

৩.৮৬

১৫%

এনসিসি ব্যাংক

২.০৯

২.৩৫

১১%

ফার্স্ট সিকিউরিটি ব্যাংক

১.৮৯

২.০৮

৯%

ঢাকা ব্যাংক

২.২৩

২.২৬

১%

উত্তরা ব্যাংক

৩.৮৩

৩.৮৬

১%

ওয়ান ব্যাংক

৩.৬০

৩.৬৪

১%

২০১৭ সালে সবচেয়ে বেশি হারে ইপিএস বেড়েছে রূপালি ব্যাংকের। আগের বছরের তুলনায় ব্যাংকটির ইপিএস বেড়েছে ১৪৫ শতাংশ। এরপরে ৩৯ শতাংশ বেড়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ডাচ-বাংলা ব্যাংক। আর ২৯ শতাংশ বেড়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছে মার্কেন্টাইল ব্যাংক।

নিম্নে ইপিএস বৃদ্ধি পাওয়া ব্যাংকগুলোর আর্থিক অবস্থা তুলে ধরা হল।

ব্যাংকের নাম

২০১৭ সালের ইপিএস (টাকা)

২০১৬ সালের ইপিএস (টাকা)

বৃদ্ধির হার

রূপালি ব্যাংক

১.৯৮

(৪.৩৯)

১৪৫%

ডাচ-বাংলা ব্যাংক

১২.২৮

৮.৮১

৩৯%

মার্কেন্টাইল ব্যাংক

৩.৮৯

৩.০১

২৯%

পূবালী ব্যাংক

১.৮৯

১.৫৮

২০%

প্রিমিয়ার ব্যাংক

২.৮৩

২.৩৫

২০%

মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক

৩.৮৯

৩.৩০

১৮%

যমুনা ব্যাংক

৩.৩৮

২.৯২

১৬%

ব্যাংক এশিয়া

২.১৪

১.৮৭

১৪%

ব্র্যাক ব্যাংক

৬.০৭

৫.৪৭

১১%

ইসলামী ব্যাংক

৩.০৬

২.৭৮

১০%

এক্সিম ব্যাংক

২.৩৪

২.১৫

৯%

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক

১.৫৬

১.৪৪

৮%

ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক

২.৫৮

২.৪৯

৪%

আল-আরাফাহ ব্যাংক

৩.১৫

৩.০৭

৩%

২০১৭ সালের ব্যবসায় সবচেয়ে কম ইপিএস হয়েছে এবি ব্যাংকের। ব্যাংকটির ইপিএস হয়েছে ০.০৫ টাকা। এরপরে প্রাইম ব্যাংকের ১.১৮ টাকা ও সাউথইস্ট ব্যাংকের ১.২৭ টাকা টাকা ইপিএস হয়েছে। গত বছরে শুধুমাত্র এই ব্যাংকগুলোর ইপিএস ১.৫০ টাকার নিচে হয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/০৩ মে, ২০১৮/আরএ

উপরে