ঢাকা, শনিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৮, ২ ভাদ্র ১৪২৫


আলোচনা-সমালোচনায় বিএনপি নেতাদের ভারত সফর

২০১৮ জুন ১০ ১২:১১:১১

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদকঃ নির্বাচনের ঠিক আগমুহূর্তে বিএনপি'র তিন নেতার ভারত সফরে বিভিন্ন থিংকট্যাঙ্ক ও গবেষণা সংস্থার সঙ্গে বৈঠক নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়েছে রাজনৈতিক অঙ্গনে। এ সফরকে দলের নেতাদের ব্যক্তিগত ও ব্যবসায়িক সফর বলে বিএনপি দাবি করলেও, আলোচনার ভিন্ন উদ্দেশ্য দেখছে আওয়ামী লীগ।

আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশ্লেষকরা বলছেন, দেশের জনগণের অধিকার খর্ব হয় এমন কোনো এজেন্ডানির্ভর আলোচনা ক্ষমতাসীন অথবা ক্ষমতার বাইরের কোনো দলের কাছেই কাম্য নয়।

উল্লেখ্য, গত ৮ ফেব্রুয়ারি দুর্নীতির মামলায় সাজাপ্রাপ্ত হওয়ার পর থেকে বেগম জিয়ার মুক্তি ও নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে কয়েকদিন রাজপথের আন্দোলনে দেখা যায় বিএনপি নেতাকর্মীদের। পরবর্তী নানান কারণে সেই আন্দোলনও স্তিমিত হয়ে পড়লে সভা-সেমিনারের দিকে মনোযোগ দিতে দেখা যায় দলটিকে।

একইসাথে দাবির বিষয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের দৃষ্টি কাড়তে কূটনৈতিক তৎপরতা জোরদার করে বিএনপি। বেশ কয়েকটি বৈঠকে কূটনীতিকদের কাছে সার্বিক পরিস্থিতি তুলে ধরেন শীর্ষ নেতারা।

তবে এই মুহূর্তে বিএনপি'র স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল আউয়াল মিন্টুসহ তিন নেতার ভারত সফর নিয়ে শুরু হয়েছে আলোচনা-সমালোচনা। এই সফরে সেখানকার বিভিন্ন গবেষণা প্রতিষ্ঠান ও থিংকট্যাঙ্কদের সঙ্গে তারা বৈঠক করেছেন বলে উঠে এসেছে গণমাধ্যমে।

এসব বৈঠকে আগামী নির্বাচন নিয়েও আলোচনা হয়েছে, এমন খবর প্রকাশ পেলেও এই সফরকে ব্যক্তিগত ও ব্যবসায়িক বলে দাবি করেছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব:) হাফিজউদ্দিন আহমেদ।

জনসমর্থন হারিয়ে রাজনৈতিকভাবে দেউলিয়া হয়েই বিএনপি বার বার বিদেশীদের কাছে ধর্না দিচ্ছে বলে দাবি করে আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেন, বিদেশিদের কাছে ধর্না দিয়ে কোনো লাভ হবে না। এদেশের সকল ক্ষমতার উৎস জনগণ, তাই জনগণের কাছেই আসতে হবে।

অন্যদিকে মেজর হাফিজ বলেন, আওয়ামী লীগ নেতারা কয়েকদিন পরপরই সেখানে যান। বিএনপি কখনো ওই দিকে তাকিয়ে থাকে না, আমরা জনগণের দিকেই তাকিয়ে আছি।

রাজনৈতিক দলগুলোর বিদেশ সফর ও বৈঠকে দেশের মানুষের স্বার্থকে প্রাধান্য দেয়ার তাগিদ দিয়েছেন আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশ্লেষক হুমায়ুন কবির বলেন, বাংলাদেশে নির্বাচন হলে তার নির্ণায়ক হবে এদেশের জনগণ।

বিদেশি শক্তিকে অভ্যন্তরীণ বিষয়ে সম্পৃক্ত করার প্রবণতা থেকে বেরিয়ে আসার জন্য রাজনৈতিক দলগুলোর প্রতি আহ্বানও জানান তিনি।

বিজনেস আওয়ার/১০জুন/এমএএস

উপরে