ঢাকা, শনিবার, ২১ জুলাই ২০১৮, ৬ শ্রাবণ ১৪২৫


সীমান্তে মাইন পোঁতার কথা স্বীকার করেনি বিজিপি

২০১৮ জুলাই ১২ ১২:৪৮:২৮

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক: বাংলাদেশ মিয়ানমার সীমান্তে মাইন পোঁতার কথা অস্বীকার করেছে দেশটির সীমান্তরক্ষী বাহিনী- বিজিপি। আজ বৃহস্পতিবার সকালে বিজিবি সদর দফতরে দুই দেশের সীমান্ত সম্মেলন শেষে যৌথ সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি করে মিয়ানমার সীমান্ত রক্ষী বাহিনী।

বিজিবি সদর দফতর পিলখানায় গেলো ৯ জুলাই থেকে শুরু হয় বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ -বিজিবি এবং মিয়ানমার সীমান্ত রক্ষী পুলিশ- বিজিপির সীমান্ত সম্মেলন। পাঁচদিনের সম্মেলন শেষে বৃহস্পতিবার আয়োজন করা হয় যৌথ সংবাদ সম্মেলন।

দীর্ঘদিন ধরে সীমান্তে মিয়ানমার সীমান্ত রক্ষী বাহিনী প্রাণঘাতী মাইন ব্যবহার করছে- এমন অভিযোগ স্থানীয় বাংলাদেশিদের। সংবাদমাধ্যমের পক্ষ থেকে এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে মাইন পোঁতার কথা মিয়ানমার অস্বীকার করে বলে জানান বিজিবির অতিরিক্ত মহাপরিচালক।

তিনি বলেন, সীমান্তে মাইন এবং আইডির বিষয়ে আমরা বিস্তারিত আলোচনা করেছি। এক্ষেত্রে তাদের বক্তব্য হচ্ছে, তারা কখনো মাইন বা আইডি ব্যবহার করে না। এরপরেও মাইন দেখা গেলে আমরা একে অপরের সঙ্গে যোগাযোগ করবো।

এছাড়া মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্যাতনে বাংলাদেশে আসা রোহিঙ্গাদের বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে, এ বিষয়ে কথা বলতে আপত্তি জানান মিয়ানমার প্রতিনিধি দলের প্রধান পুলিশ ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মায়ো থান। পরে বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের প্রধান জানান, বিষয়টি আলোচ্য সূচিতে ছিল না।

উভয়পক্ষ সীমান্তে শান্তি, স্থিতিশীলতা ও নিরাপত্তা নিশ্চিতে একসঙ্গে কাজ করার অঙ্গীকারের মধ্য দিয়ে শেষ হয় সীমান্ত সম্মেলন। আসছে বছর দুই বাহিনী মিয়ানমারের রাজধানী নাইপেদোতে অনুষ্ঠিত হবে সীমান্ত সম্মেলন।

বিজনেস আওয়ার/১২জুলাই/এমএএস

উপরে