এ প্রসঙ্গে অর্থমন্ত্রী বলেন“ তিনটি নতুন ব্যাংক অনুমোদন দেওয়া হবে।” সাংবাদিকদের নতুন ব্যাংক অনুমোদন দেওয়ার গুঞ্জনের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি এ কথা বলেন।

সোমবার ঢাকা ক্লাবে ‘প্রটেক্টিং পুওর : এমার্জিং মাইক্রো ইন্সুরেন্স মার্কেট ইন দ্য সাউথ এশিয়া’ শীর্ষক এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকরা নতুন ব্যাংক নিয়ে প্রশ্ন করেন অর্থমন্ত্রীকে।

নতুন ব্যাংক অনুমোদন দেওয়া যৌক্তিক কি না- এ প্রশ্নের উত্তরে মুহিত বলেন, “সমস্যা নেই। আমাদের অনেক ব্যাংক আছে ঠিক, কিন্তু তারপরও প্রচুর অঞ্চল ব্যাংক সেবার বাইরে আছে। এ কারণেই নতুন ব্যাংকের অনুমোদন দেওয়া হচ্ছে।”

বাংলাদেশে এখন সরকারি-বেসরকারি মিলিয়ে অর্ধশত বাণিজ্যিক ব্যাংক রয়েছে, যা চাহিদার তুলনায় বেশি বলে অধিকাংশ ব্যাংকারই মনে করেন।

আওয়ামী লীগ সরকার আমলে কয়েক বছর আগে ছয়টি নতুন ব্যাংক অনুমোদন দেওয়া হয়, রাজনৈতিক বিবেচনায় ওই ব্যাংকগুলোর অনুমোদন দেওয়া নিয়েও সমালোচনা রয়েছে।

গত কয়েক বছর ধরেই ব্যাংক খাতের ঋণ কেলেঙ্কারি আলোচিত ঘটনা। সর্বশেষ অনুমোদন পাওয়া কয়েকটি ব্যাংকও ঋণ কেলেঙ্কারিসহ তারল্য সঙ্কটে ধুকছে।

বিজনেস আওয়ার/এন