ঢাকা, শনিবার, ১৭ আগস্ট ২০১৯, ২ ভাদ্র ১৪২৬


সপ্তাহজুড়ে ব্লকে ৬২ কোটি টাকার লেনদেন

২০১৯ ফেব্রুয়ারি ০৯ ১১:৫৫:৫৫

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : বিদায়ী সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ব্লক মার্কেটে ৪৬টি প্রতিষ্ঠান লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব কোম্পানির ৬১ কোটি ৭০ লাখ ৬২ হাজার টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যালসের। কোম্পানিটির সপ্তাহজুড়ে ৮ কোটি ৫৫ লাখ ৭৬ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৭ কোটি ৮৬ লাখ ৯০ হাজার টাকার গ্রামীণফোনের এবং তৃতীয় সর্বোচ্চ ৫ কোটি ৯৯ লাখ ৬৫ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে গ্লাক্স্যো স্মিথ ক্লাইনের।

এছাড়া অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে ব্র্যাক ব্যাংকে ৫ কোটি ৬ লাখ ৯০ হাজার টাকার, বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবলসের ১ কোটি ৪ লাখ ৯০ হাজার টাকার, মুন্নু জুট ম্যানুফ্যাকচারিংয়ের ১ কোটি ১৭ লাখ ২০ হাজার টাকার, প্রভাতী ইন্স্যুরেন্সের ৪৩ লাখ ৩৩ হাজার টাকার, প্যারামাউন্ট টেক্সটাইলের ১ কোটি ৬১ লাখ ২ হাজার টাকার, এসকে ট্রিমসের ১ কোটি ৭২ লাখ ৫১ হাজার টাকার, এশিয়া ইন্স্যুরেন্সের ৩৫ লাখ ৩৫ হাজার টাকার, নাভানা সিএনজির ৩ কোটি ১০ লাখ ৪৯ হাজার টাকার, ওয়াইম্যাক্সের ১ কোটি ৩৫ লাখ টাকার, সায়হাম কটনের ৮৮ লাখ ৭৬ হাজার টাকার, ইউনাইটেড পাওয়ারের ১ কোটি ৯৮ লাখ ২ হাজার টাকার, আর্গন ডেনিমসের ১ কোটি ৮৯ লাখ ৭০ হাজার টাকার, ইস্টল্যান্ড ইন্স্যুরেন্সের ৩৯ লাখ ৩০ হাজার টাকার, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের ৩৫ লাখ ৯৯ হাজার টাকার, ম্যাকসন্স স্পিনিংয়ের ১ কোটি ১৬ লাখ ৫৯ হাজার টাকার, মুন্নু সিরামিকের ৯৮ লাখ ৮৯ হাজার টাকার, প্যাসিফিক ডেনিমসের ১৩ লাখ ২ হাজার টাকার, সিমটেক্সের ২৯ লাখ ৪৯ হাজার টাকার, আলিফ ম্যানুফ্যাকচারিংয়ের ১ কোটি ৭ লাখ ৩৬ হাজার টাকার, ডিবিএইচ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ৯ লাখ টাকার, ডাচবাংলা ব্যাংকের ৮ লাখ ৯৭ হাজার টাকার, ইবনে সিনার ৪০ লাখ ৫০ হাজার টাকার, ইফাদ অটোসের ২ কোটি ৯৮ লাখ ২০ হাজার টাকার, ইসলামী ইন্স্যুরেন্সের ৫৭ লাখ ৮০ হাজার টাকার, রূপালী লাইফ ইন্স্যুরেন্সের ১ কোটি ৮৪ লাখ ৭৪ হাজার টাকার, সুহৃদের ১ কোটি ৩২ লাখ টাকার, ব্যাংক এশিয়ার ২৪ লাখ ৮৬ হাজার টাকার, বৃটিশ আমেরিকান ট্যোবাকোর ১ কোটি ৮০ লাখ টাকার, বিডিকমের ৩২ লাখ টাকার, ঢাকা ব্যাংকের ৬৭ লাখ ৮৭ হাজার টাকার, ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্সের ৯ লাখ ৪৩ হাজার টাকার, ইসলামিক ফাইন্যান্সের ৩৭ লাখ ২৩ হাজার টাকার, জেএমআই সিরিঞ্জের ৭ লাখ ৭৮ হাজার টাকার, অলিম্পিকের ৫৮ লাখ ৩২ হাজার টাকার, পাওয়ার গ্রীডের ১৩ লাখ ৭১ হাজার টাকার, সোনার বাংলা ইন্স্যুরেন্সের ৮ লাখ ২৪ হাজার টাকার, স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্সের ৩৮ লাখ ২৯ হাজার টাকার, আইডিএলসির ৩৫ লাখ টাকার, মেঘনা লাইফ ইন্স্যুরেন্সের ২৩ লাখ ৪০ হাজার টাকার, এমএল ডাইংয়ের ৭৯ লাখ টাকার, সমতা লেদারের ২৯ লাখ ১০ হাজার টাকার, শাহজিবাজার পাওয়ারের ৫ লাখ ৪০ হাজার টাকার এবং তসরিফার ৫৯ লাখ ৯৫ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/ ০৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯/পিএস

উপরে