ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬


টানা কয়েক ঘণ্টা এসিতে থাকলে যে ক্ষতি হয়

২০১৯ মে ০৯ ১৫:৪১:৩২

বিজনেস আওয়ার ডেস্কঃ আজকাল প্রায় সব অফিসেই এসি অর্থাৎ এয়ারকন্ডিশন ব্যবহার করা হয়। টানা কয়েক ঘণ্টা এসিতে থাকার পর বাসায় ফিরে অনেকেরই আর ফ্যানের বাতাস সহ্য হয় না। এ কারণে অনেকে বাড়িতেও এসি ব্যবহার করছেন।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অতিরিক্ত এসি নির্ভরশীলতা স্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর হতে পারে। সেই সঙ্গে বাড়াতে পারে স্বাস্থ্যঝুঁকিও। যেমন-

১. যারা দিনের বেশির ভাগ সময় বা অন্তত টানা ৯ থেকে ১০ ঘণ্টা শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঘরে কাটান, তাদের শ্বাসতন্ত্রের নানা সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বহুগুণ বেড়ে যায়।

২. অতিরিক্ত এসির ব্যবহারের কারণে চোখে নানা ধরণের সংক্রমণ দেখা দেয়।

৩. যারা একটানা ৯ থেকে ১০ ঘণ্টা শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঘরে কাটান, তাদের মধ্যে আর্থাইটিস, উচ্চ রক্তচাপ বা নানা ধরণের স্নায়ুর সমস্যা বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা বাড়ে।

৪. অতিরিক্ত এসির ব্যবহার বা দীর্ঘক্ষণ এসিতে থাকার ফলে অনেকের অ্যালার্জির সমস্যাও বাড়তে পারে।

৫. দীর্ঘ ক্ষণ এসিতে থাকার কারণে ত্বক তার স্বাভাবিক আর্দ্রতা হারিয়ে শুষ্ক হয়ে যায় । তখন ত্বকে নানা সমস্যা দেখা দেয়।

৬. একাধিক গবেষণায় দেখা গেছে, যারা দীর্ঘসময় শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত পরিবেশে থাকেন, তারা মাথা ব্যথা বা মানসিক অবসাদের মতো সমস্যায় বেশি ভোগেন।

তবে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত পরিবেশে থেকে নিজেকে সুস্থ রাখার কিছু পরামর্শও দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। যেমন-

১. ঘরের তাপমাত্রা ২১-২৫ ডিগ্রির মধ্যে রাখতে হবে। ঘরের তাপমাত্রা কখনই ২০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কম রাখা ঠিক নয়।

২. শীতের সময় এসির ব্যবহার এড়িয়ে চলুন।

৩. ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখতে ময়েশ্চারাইজিং লোশন বা ক্রিম ব্যবহার করতে পারেন।

৪. মাঝে মধ্যেই মুখে, হাতে পানি ব্যবহার করুন। প্রয়োজনে হালকা চাদর গায়ে জড়িয়ে রাখতে পারেন। সূত্র : জি নিউজ

বিজনেস আওয়ার/৯ মে,২০১৯/ আরআই

উপরে