ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১ আশ্বিন ১৪২৬


এক ঘণ্টা হলেও খেলতে চান রশিদ

২০১৯ সেপ্টেম্বর ০৯ ১২:৩৫:১৬

স্পোর্টস ডেস্ক : বৃষ্টির কারণে চতুর্থ দিন প্রায় ঘণ্টাখানেক আগে খেলা শেষ হয়। তাই পঞ্চম দিন ঠিক করা হয় ত্রিশ মিনিট আগে শুরু হবে খেলা। কিন্তু সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) ম্যাচের পঞ্চম দিন সকাল ৮টার আগে থেকেই শুরু হয় বৃষ্টি।

তবু আশাকে ভেলা বানিয়ে সাগরিকায় তীরে তরী জমানোর উদ্দেশ্যে, সকাল সাড়ে ৮টা বাজতেই টিম হোটেল ছেড়ে মাঠে চলে আসে আফগানিস্তান ক্রিকেট দল। তবে মাঠে এসে অবশ্য আশার আলো দেখতে পায়নি টিম রশিদ খান।

বরং সকাল ৮টার আগে শুরু হওয়া বৃষ্টি চললো সড়ে ১১টা পর্যন্ত। কখনও কখনও ঝড়ো বৃষ্টি আবার কখনও গুঁড়িগুঁড়ি। তবে এই বৃষ্টিতেই ম্যাচ থেকে হারিয়ে গেছে প্রথম সেশনের পুরোটা, হয়তো দ্বিতীয় সেশনেও মাঠে গড়াবে না খেলা।

স্বাভাবিকভাবেই হতাশ পুরো আফগানিস্তান ক্রিকেট দল। ড্রেসিংরুমে বসে নিজেদের চুল ছিঁড়ছেন আফগানিস্তানের খেলোয়াড়রা। আশায় আছেন, অন্তত এক ঘণ্টার জন্য হলেও যেন মাঠে গড়ায় খেলা।

আফগান খেলোয়াড়রা যখন ড্রেসিংরুমে বসে বৃষ্টি থামার অপেক্ষায়, তখন তাদের সোশ্যাল মিডিয়া ম্যানেজার সৈয়দ হযরত সাদাত ছুটে এলেন মিডিয়া সেন্টারে। কিছু ছবি তুললেন এবং তথ্য নিলেন আবহাওয়ার ব্যাপারে।

এরই ফাঁকে সংবাদ মাধ্যমকে জানালেন, পুরো দল হতাশ। আমাদের জন্য ভালো একটা সুযোগ। ড্রেসিংরুমে সবাই গালে হাত দিয়ে বসে আছে। খুবই হতাশ সবাই।

তবে আফগানরা যতই হতাশ হোক, তাদের মধ্যে আত্মবিশ্বাস রয়েছে যে অন্তত ১ ঘণ্টা খেলা হলেও স্বাগতিকদের বাকি থাকা ৪ উইকেট তুলে নিতে পারবে তারা।

সৈয়দ সাদাত নিজে অন্তত এক সেশনের ব্যাপারে বললেও, পরে অধিনায়ক রশিদ খানের কথা উদ্ধৃত করে জানিয়ে দেন যে অন্তত ১ ঘণ্টা হলেও খেলতে চায় দল। আমি মনে করি এখন এক সেশন খেলা হলেও আমাদের কাজ হবে। অন্তত একটা সেশন আমরা খেলতে চাই।

আমাদের অধিনায়ক (রশিদ খান), পুরো দল আত্মবিশ্বাসী। তারা এক ঘণ্টার জন্য হলেও খেলতে চায়। এ ম্যাচটা আমাদের দলের জন্য অনেক বড় বিষয়। আমরা জিততে চাই।

উল্লেখ্য, চতুর্থ দিন শেষে ম্যাচের অবস্থা এখন দাঁড়িয়েছে, শেষদিনে জয়ের জন্য বাংলাদেশের প্রয়োজন ২৬২ রান। অন্যদিকে বাকি থাকা ৪ উইকেট তুলে নিলেই অবিস্মরণীয় এক জয় পেয়ে যাবে আফগানিস্তান। অবশ্য এজন্য শুরু হতে হবে খেলা।

বিজনেস আওয়ার/০৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯/এ

উপরে