sristymultimedia.com

ঢাকা, শনিবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৯, ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬


চিলিতে দ্বিতীয় দিনের মতো দাঙ্গা-সহিংসতা চলছে

০৯:৫৬এএম, ২০ অক্টোবর ২০১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : সামাজিক এবং অর্থনৈতিক বিভিন্ন ইস্যুকে কেন্দ্র করে লাতিন আমেরিকার দেশ চিলিতে সাধারণ নাগরিকদের মধ্যে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে। বিক্ষোভে অংশ নেয়া লোকজনের সঙ্গে দ্বিতীয় দিনের মতো নিরাপত্তা বাহিনীর সংঘর্ষ ঘটেছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে জরুরি অবস্থা জারি করা হলেও পরিস্থিতি এখনও নিয়ন্ত্রণের বাইরে। লাতিন আমেরিকার স্থিতিশীল দেশগুলোর মধ্যে অন্যতম চিলি। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে সেখানে সহিংস পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।

রোববার কারফিউ জারি করেছে সানতিয়াগো কর্তৃপক্ষ। বিক্ষোভকারীরা বাস, মেট্রো স্টেশনে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে এবং দাঙ্গা পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে সেখানে কারফিউ জারি করা হয়েছে। সানতিয়াগো শহরে প্রায় ৭০ লাখ মানুষ বাস করে।

আর্মি জেনারেল জেভিয়ার ইতুরিয়েজ বলেন, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে এবং আজকের সহিংস কর্মকাণ্ডের ঘটনায় আমি স্বাধীনতা তুলে নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি এবং কারফিউ জারি করা হচ্ছে। জরুরি অবস্থার মধ্যে তিনি নিরাপত্তা তত্ত্বাবধানের দায়িত্ব পালন করছেন।

সংবাদ মাধ্যম এএফপির একটি ভিডিওতে দেখা গেছে উন্মত্ত জনতাকে হটাতে জল কামান নিক্ষেপ করছে দাঙ্গা পুলিশ। সানতিয়াগো এবং অন্যান্য শহরে বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন হাজার হাজার মানুষ। মেট্রোর ভাড়া বৃদ্ধিকে কেন্দ্র করেই এই বিক্ষোভের সূচনা।

মেট্রোর ভাড়া ৮শ পেসো থেকে ৮৩০ পেসো করা হয়েছে। বিক্ষোভকারীদের বিক্ষোভের কারণে পুরো মেট্রো সেবা বন্ধ হয়ে যাওয়ায় শনিবার প্রেসিডেন্ট সেবাসতিয়ান পিসেরা ঘোষণা দেন যে, অতিরিক্ত ভাড়া বাতিল করা হয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/২০ অক্টোবর, ২০১৯/এ

উপরে