sristymultimedia.com

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬


কসবায় ট্রেন দুর্ঘটনা: অপমৃত্যুর মামলা

১০:৩৯এএম, ১৩ নভেম্বর ২০১৯

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় ট্রেন দুর্ঘটনায় ১৬ জন নিহত হওয়ার ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১২ নভেম্বর) রাতে আখাউড়া রেলওয়ে থানায় মামলাটি দায়ের করেন মন্দবাগ রেলস্টশন মাস্টার জাকির হোসেন চৌধুরী।

আখাউড়া রেলওয়ে থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শ্যামল কান্তি দাস বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, স্টেশন মাস্টার জাকির হোসেন চৌধুরী থানায় একটি ইউডি (অপমৃত্যু) মামলা করেছেন।

এর আগে মঙ্গলবার (১২ নভেম্বর) ভোররাত পৌনে ৩টার দিকে মন্দবাগ রেলওয়ে স্টেশনে তূর্ণা নিশীথা ও উদয়ন এক্সপ্রেস ট্রেনের সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় ১৬ জন নিহত এবং শতাধিক আহত হন।

দুর্ঘটনার পর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে রেলপথ মন্ত্রী নূরুল ইসলাস সুজন দুর্ঘটনার জন্য তূর্ণা নিশীথার লোকোমোটিভ মাস্টারকে দায়ী করেন। দুর্ঘটনার পরই তূর্ণার লোকোমোটিভ মাস্টার ও সহকারী মাস্টারকে বরখাস্ত করা হয়।

গতকাল মঙ্গলবার রাতে নিহত ১৬ জনের মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে জেলা প্রশাসন। আর আহতদের উন্নত চিকিৎসার জন্য জেলা সদর হাসপাতাল থেকে ১০ জনকে ঢাকার সিএমএইচে পাঠানো হয়েছে। বর্তমানে জেলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন ২ জন।

দুর্ঘটনার কারণ খতিয়ে দেখার জন্য রেলপথ মন্ত্রণালয় থেকে দুইটি, রেলওয়ে বিভাগ থেকে দুইটি ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে একটিসহ মোট পাঁচটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।

দুর্ঘটনার ব্যাপারে মন্দবাগ রেলস্টেশনের মাস্টার জাকির হোসেন চৌধুরী বলেন, আউটার ও হোম সিগন্যালে লালবাতি (সতর্ক সংকেত) দেয়া ছিল। কিন্তু তূর্ণা নিশীথার চালক সিগন্যাল অমান্য করে ঢুকে পড়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

রেলওয়ের পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক (জিএম) নাসির উদ্দিন আহমেদ বলেন, আমরা সবগুলো বিষয় সামনে রেখে তদন্ত করছি। তদন্তের আগে কিছু বলা যাবে না। ইতোমধ্যে দায়িত্বে গাফিলতির কারণে তিনজনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/১৩ নভেম্বর, ২০১৯/এ

এই বিভাগের অন্যান্য খবর

তিন বিভাগে পেট্রলপাম্প ধর্মঘট
তেল বিক্রি বন্ধ, অচল হয়ে যেতে পারে সড়কপথ

উপরে