ঢাকা, শনিবার, ১৯ জানুয়ারি ২০১৯, ৬ মাঘ ১৪২৫
sristymultimedia.com

প্রচ্ছদ » অর্থনীতি » বিস্তারিত


ss-steel-businesshour24

Runner-businesshour24

'জাতীয় ভ্যাট সপ্তাহ' শুরু

আপডেট : 2018-12-10 14:10:53
'জাতীয় ভ্যাট সপ্তাহ' শুরু

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক: নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে আজ পালিত হচ্ছে জাতীয় ভ্যাট দিবস। এর পাশাপাশি শুরু হয়েছে 'জাতীয় ভ্যাট সপ্তাহ'। 'ভ্যাট দিচ্ছে জনগন, দেশের হচ্ছে উন্নয়ন' এই শ্লোগানকে সামনে রেখে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) এবার ভ্যাট দিবস ও ভ্যাট সপ্তাহ উদযাপনের জন্য বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত সারাদেশে ভ্যাট সপ্তাহ পালিত হবে।

সোমবার (১০ ডিসেম্বর) সকালে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় রাজস্ব ভবন প্রাঙ্গণে এনবিআর চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন ভূইয়া জাতীয় ভ্যাট দিবস ও ভ্যাট সপ্তাহের উদ্বোধন করেন।

সন্ধ্যায় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনকেন্দ্রে এ উপলক্ষে মতবিনিময় সভা এবং সর্বোচ্চ ভ্যাট প্রদানকারীদের সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে রাজস্ব প্রশাসন। এতে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।

ভ্যাট দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক পৃথক বাণী দিয়েছেন। রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ভ্যাট দিবসের বাণীতে বলেন, রাষ্ট্র পরিচালনার ক্ষেত্রে রাজস্ব অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ উপাদান। রাষ্ট্রের নানাবিধ ব্যয় নির্বাহ এবং উন্নয়ন প্রকল্পসমূহ বাস্তবায়নের জন্য যে অর্থের প্রয়োজন তার সিংহভাগই আসে অভ্যন্তরীণ রাজস্ব থেকে।

আর এ রাজস্বের অন্যতম উৎস হচ্ছে ভ্যাট। যথাসময়ে সঠিক পরিমাণ ভ্যাট আহরণ নিশ্চিত করতে ভ্যাট আহরণকারী কর্মকর্তা ও ব্যবসায়ীগণের মধ্যে পারস্পরিক আস্থা, বিশ্বাস ও সহযোগিতার অনুকূল পরিবেশ নিশ্চিত করা অত্যন্ত জরুরী। রাজস্ব আহরণের গতিকে আরো বেগবান করতে ব্যবসায়ী, ভোক্তা সাধারণ, রাজস্বকর্মীসহ দেশবাসীকে এগিয়ে আসতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার বাণীতে বলেছেন, রাজস্ব ব্যবস্থাপনা ও অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে গতিশীলতা ও স্বচ্ছতা আনয়নের জন্য সরকার কাজ করে যাচ্ছে। ব্যবসাবান্ধব পরিবেশ সৃষ্টি, যুগোপযোগি রাজস্ব নীতি প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন, ব্যবসায়িক ও রাজস্ব সংশ্লিষ্ট কর্মকান্ডে অত্যাধুনিক তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার করে রাজস্ব প্রশাসন সুসংগঠিত ও সুসংহত করার মাধ্যমে রাজস্ব আহরণে মানসম্মত পরিবর্তন আনা হয়েছে। রাজস্ব প্রবৃদ্ধির অন্যতম সহায়ক শক্তি জনগন। রাজস্ব প্রবৃদ্ধির কারণে দেশ আজ নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতুর মত বিশাল প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে পারছে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া বলেন, রাজস্ব আহরণের একটি উল্লেখযোগ্য অংশ হলো ভ্যাট (মূল্য সংযোজন কর)। কারণ মোট রাজস্ব আদায়ের ৩৭-৩৮ ভাগ আসে এ খাত থেকে।

তিনি বলেন, ব্যবসায়ীরা জনগণের কাছ থেকে যে ভ্যাট আদায় করছেন, সেটিও যদি সঠিকভাবে সরকারের কোষাগারে জমা হয়। তাহলেও আরও বেশি রাজস্ব আসার কথা। এজন্য এনবিআরের জনবলের পাশাপাশি সাধারণ মানুষকেও নিজের দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করার জন্য আহ্বান জানান তিনি।

চেয়ারম্যান বলেন, আমাদের ডিপার্টমেন্টগুলোকে অটোমেশন করে ফেলা জরুরি। অটোমশনটি প্রক্রিয়ায় আছে। তাড়াতাড়ি করবো। সহকর্মীদের কাছে আবেদন, যার যার দায়িত্ব পালন করবেন। কারণ অটোমেশনটি করতে পারলেই ভ্যাট ট্যাক্সের সঠিক হিসাব পাবো।

দেশের উন্নয়নে রাজস্ব আহরণের বিকল্প নেই উল্লেখ করে তিনি বলেন, জনবহুল এদেশে বর্তমানে যে ভ্যাট আদায় হচ্ছে, তার চেয়ে বেশি পাওয়ার কথা। কিন্তু পাচ্ছি না। সেজন্য আমাদের পক্ষ থেকে সব প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছি। পাশাপাশি মানুষকে ভ্যাট-ট্যাক্স দিতে দেশ প্রেমে উদ্বুদ্ধ করছি।

এনবিআরের কর্মকর্তাদের উদ্দেশে চেয়ারম্যান বলেন, রাজস্ব আদায় করতে গিয়ে যাতে কোনও ব্যবসায়ী হয়রানির মুখে না পড়েন। তাদের কাছ থেকে আইনগতভাবে রাজস্ব আদায় করবেন।

বিজনেস আওয়ার/১০ ডিসেম্বর, ২০১৮/এমএএস

পাঠকের মতামত: