ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০১৯, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬
sristymultimedia.com

প্রচ্ছদ » বিনোদন » বিস্তারিত


ss-steel-businesshour24

Runner-businesshour24

সেন্সর বোর্ডে প্রশংসিত ‘নোলক’

আপডেট : 2019-04-23 17:20:07
সেন্সর বোর্ডে প্রশংসিত ‘নোলক’

বিনোদন প্রতিবেদক : অবশেষে সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ড থেকে ‘আনকাট’ ছাড়পত্র পেয়েছে শাকিব খান-ববি অভিনীত বহুল আলোচিত চলচ্চিত্র ‘নোলক’। গতকাল (২২ এপ্রিল) বিকেলে ছবিটির সেন্সর শো অনুষ্ঠিত হয়। ‘নোলক’ ছবিটি দেখার পর সবাই অনেক প্রশংসা করে বলে বিজনেস আওয়ারকে জানিয়েছেন এই ছবির প্রযোজক কাম নির্মাতা সাকিব সনেট।

এ প্রসঙ্গে প্রযোজক-নির্মাতা সাকিব সনেট বলেন, ‘ছবিটির বিরুদ্ধে সেন্সর বোর্ডে যে সব অভিযোগ দেওয়া হয়েছিল, সে বিষয়ে কথা বলার জন্য আমাকে সেন্সর বোর্ডের মাননীয় ভাইস চেয়ারম্যান ডেকেছিলেন। আমি গিয়েছি, তার সঙ্গে বিষয়গুলো নিয়ে সরাসরি কথা বলেছি। অভিযোগের প্রেক্ষিতে আমার কাছে যে সব প্রমাণ ও যুক্তি ছিল, আমি তার সামনে উপস্থাপন করেছি। তারপরই ছবিটি সেন্সর শো-এর জন্য অনুমতি পায়।’

‘নোলক’ ছবিটি কার নামে সেন্সর হয়েছে জানতে চাইলে সাকিব সনেট বলেন, ‘ছবির প্রযোজক আমি। এখন পরিচালক হিসেবেও আমার নাম থাকবে। আর মুক্তি দেব ঈদুল ফিতরে। সেন্সর যেহেতু পেয়ে গেছি, মুক্তি আর কেউ আটকাতে পারবে না। আশা করি, দর্শকরা শাকিব ও ববির আরও একটি ভিন্ন রসায়নের ছবি উপভোগ করবেন।’

আর ছবিটি কবে মুক্তি পাবে জানতে চাইলে সাকিব সনেট বলেন, ‘আমার তো ইচ্ছে রয়েছে, এই ঈদেই ছবিটি মুক্তি দিবো। তারপরও আমার যে সিনেমার টিম রয়েছে, তাদের সঙ্গে আলোচনা করেই সিদ্ধান্ত দিবো। কারণ ছবিটি তো বিগ বাজেটের। তার থেকেও বড় কথা হলো আমার যে কনটেন্ট, এটা ঈদের। কাজটি করতে গিয়ে বহু জটিলতার সম্মুখীন আমি হয়েছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘ফাইনালি ছবিটি তো আমি দেখেছি, আমার বিশ্বাস গত কয়েক বছরে শাকিব ভাইয়ের ক্যারিয়ারে উল্লেখ করার মতো এটি একটি ছবি হবে।’

এ প্রসঙ্গে চিত্রনায়িকা ববি বলেন, ‘শুরু থেকেই এ ছবিটি অপ্রত্যাশিত কিছু বাধা বিঘ্ন পাড়ি দিয়েছে। সব বাধা কাটিয়ে এবার আলোর মুখ দেখতে চলেছে ‘নোলক’।’

এই ছবিটির কাহিনি, সংলাপ ও চিত্রনাট্য করেছেন ফেরারি ফরহাদ। ছবিটি প্রযোজনা করেছে বি হ্যাপি এন্টারটেইনমেন্ট। ২০১৭ সালের ১ ডিসেম্বর ভারতের হায়দরাবাদে ‘নোলক’ সিনেমার শুটিং শুরু হয়। এতে অভিনয় করেছেন শাকিব খান, ববি, মৌসুমী, ওমর সানী, তারিক আনাম খান, নিমা রহমান, রেবেকা, ভারতের রজতাভ দত্ত, সুপ্রিয় দত্ত, অমিতাভ ভট্টাচার্য প্রমুখ।

দুই বছর আগে জমকালো আয়োজনে ঢাকার একটি হোটেল সিনেমাটির মহরত অনুষ্ঠিত হয়। টানা ২৮ দিন শুটিং শেষে ইউনিট নিয়ে দেশে ফেরার পর ছবির পরিচালক রাশেদ রাহা’র সঙ্গে প্রযোজক সনেটের দ্বন্দ্ব শুরু হয়। এ কারণেই ছবির নির্মাণকাজ কয়েকবার পিছিয়ে যায়। পরে রাশেদ রাহাকে সরিয়ে দিয়ে পরিচালকের ভূমিকায় আসেন প্রযোজক নিজেই। এ নিয়ে জটিলতা আরও প্রকট হয়। পরবর্তীতে ২০১৮ সালের ২২ জুলাই ফের কলকাতায় ছবির শুটিং শুরু হয়।

বিজনেস আওয়ার/২৩ এপ্রিল, ২০১৯/এসআর/এ

পাঠকের মতামত: