বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : সোমবার (২৭ জানুয়ারি) ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ১৯টি খাতের ৩৫৪টি কোম্পানির ৪০৪ কোটি ৫৮ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। খাতগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি অর্থাৎ ৫৮ কোটি ৭০ লাখ টাকার বা ১৫.৩৭ শতাংশ লেনদেন হয়েছে প্রকৌশল খাতে। এর মাধ্যমে টানা চতুর্থ দিন লেনদেনের শীর্ষ স্থান দখলে রেখেছে প্রকৌশল খাত।

আজ ৫২ কোটি ৪ লাখ টাকা বা ১৩.৬৩ শতাংশ লেনদেনে হলে আগের দিনের মতো দ্বিতীয় স্থান ধরে রেছেছে বস্ত্র খাত এবং ৪৩ কোটি ৭৭ লাখ টাকা বা ১১.৪৬ শতাংশ লেনদেনের মাধ্যমে তৃতীয় স্থানে উঠে আসে ওষুধ ও রসায়ন খাতের কোম্পানিগুলো।

এছাড়া সিমেন্ট খাতে ৩৬ কোটি ৯২ লাখ টাকা বা ৯.৬৭ শতাংশ, বীমা খাতে ৩১ কোটি ৭৩ লাখ টাকা বা ৮.৩১ শতাংশ, ব্যাংক খাতে ২৫ কোটি ৭৭ লাখ টাকা বা ৬.৭৫ শতাংশ, খাদ্য ও আনুষঙ্গিক খাতে ২০ কোটি ৮৬ লাখ টাকা বা ৫.৪৬ শতাংশ, টেলিযোগাযোগ খাতে ১৮ কোটি ২৬ লাখ টাকা বা ৪.৭৮ শতাংশ, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে ১৮ কোটি ১৫ লাখ টাকা বা ৪.৭৫ শতাংশ, তথ্যপ্রযুক্তি খাতে ১৬ কোটি ৩৩ লাখ টাকা বা ৪.২৮ শতাংশ, আর্থিক খাতে ১৪ কোটি ৩২ লাখ টাকা বা ৩.৭৫ শতাংশ, বিবিধ খাতে ১৩ কোটি ৭ লাখ টাকা বা ৩.৪২ শতাংশ, ভ্রমণ ও অবকাশ খাতে ৫ কোটি ৭৬ লাখ টাকা বা ১.৫১ শতাংশ, সিরামিকস খাতে ৫ কোটি ৭৩ লাখ টাকা বা ১.৫০ শতাংশ, মিউচ্যুয়াল ফান্ড খাতে ৫ কোটি ৪৯ লাখ টাকা বা ১.৪৪ শতাংশ, সেবা ও অবকাশ খাতে ৫ কোটি ২ লাখ টাকা বা ১.৩১ শতাংশ, চামড়া খাতে ৪ কোটি ৩৮ লাখ টাকা বা ১.১৫ শতাংশ, পাট খাতে ৪ কোটি ২২ লাখ টাকা বা ১.১০ শতাংশ এবং পেপার ও প্রিন্টিং খাতে ১ কোটি ৩৩ লাখ টাকা বা ০.৩৫ শতাংশ লেনদেন হয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/২৭ জানুয়ারি, ২০২০/এস