ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শেয়ারবাজারে ৩১ ব্যাংকের ৩৩২২ কোটি টাকার নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা

  • পোস্ট হয়েছে : ০২:৩৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ৬ মে ২০২৪
  • 102

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক: শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৩১ ব্যাংক থেকে শেয়ারহোল্ডারদের ৩ হাজার ৩২২ কোটি টাকার বেশি নগদ লভ্যাংশ দেওয়া হবে। এরইমধ্যে ব্যাংকগুলোর পর্ষদ সভায় এই লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে। যা ব্যাংকগুলোর বার্ষিক সাধারন সভায় (এজিএম) শেয়ারহোল্ডারদের অনুমোদন শেষে বিতরন করা হবে।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পরিচালক শাকিল রিজভী অর্থ বাণিজ্যকে বলেন, চলমান সংকটের সময় ব্যাংকের এই নগদ লভ্যাংশ খুবই ইতিবাচক খবর। এটার দরকার ছিল।

দেখা গেছে, শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৩৬টি ব্যাংকের মধ্যে ৩১টির পর্ষদ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এই ব্যাংকগুলোর পর্ষদ মোট ৩ হাজার ৩২২ কোটি ২৯ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে।

সবচেয়ে বেশি নগদ লভ্যাংশ দেবে সিটি ব্যাংক। ব্যাংকটি শেয়ারহোল্ডারদের ১৫ শতাংশ হারে ২০২ কোটি ৬ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ দেবে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১৯৮ কোটি ১৫ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ দেবে প্রাইম ব্যাংক। আর ব্যাংক এশিয়া দেবে তৃতীয় সর্বোচ্চ ১৭৪ কোটি ৮৯ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ।

বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স এসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) সভাপতি ছায়েদুর রহমান অর্থ বাণিজ্যকে বলেন, কিছু কিছু ব্যাংক প্রত্যাশার থেকে বেশি নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। যা শেয়ারবাজারের জন্য সুখবর। ব্যাংকগুলোর এবারের নগদ লভ্যাংশে বাজারে গতি বৃদ্ধি করবে বলে যোগ করেন তিনি।

নিম্নে তালিকাভুক্ত ব্যাংকগুলোর ২০২৩ সালের ব্যবসায় ঘোষিত নগদ লভ্যাংশের পরিমাণ তুলে ধরা হল-

এ বছর শুধুমাত্র বোনাস শেয়ার ঘোষণা করেছে এ‌বি ব্যাংক ও আইএফআইসি ব্যাংক। আর লোকসান করা আইসিবি ইসলামিক ব্যাংক ও ন্যাশনাল ব্যাংক লভ্যাংশ ঘোষণা করেনি। এছাড়া মুনাফা সত্ত্বেও লভ্যাংশ ঘোষণা করেনি রূপালি ব্যাংক।

বিজনেস আওয়ার/০৬ মে/ এ এইচ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান:
ট্যাগ :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার মেইলে তথ্য জমা করুন

শেয়ারবাজারে ৩১ ব্যাংকের ৩৩২২ কোটি টাকার নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা

পোস্ট হয়েছে : ০২:৩৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ৬ মে ২০২৪

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক: শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৩১ ব্যাংক থেকে শেয়ারহোল্ডারদের ৩ হাজার ৩২২ কোটি টাকার বেশি নগদ লভ্যাংশ দেওয়া হবে। এরইমধ্যে ব্যাংকগুলোর পর্ষদ সভায় এই লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে। যা ব্যাংকগুলোর বার্ষিক সাধারন সভায় (এজিএম) শেয়ারহোল্ডারদের অনুমোদন শেষে বিতরন করা হবে।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পরিচালক শাকিল রিজভী অর্থ বাণিজ্যকে বলেন, চলমান সংকটের সময় ব্যাংকের এই নগদ লভ্যাংশ খুবই ইতিবাচক খবর। এটার দরকার ছিল।

দেখা গেছে, শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৩৬টি ব্যাংকের মধ্যে ৩১টির পর্ষদ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এই ব্যাংকগুলোর পর্ষদ মোট ৩ হাজার ৩২২ কোটি ২৯ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে।

সবচেয়ে বেশি নগদ লভ্যাংশ দেবে সিটি ব্যাংক। ব্যাংকটি শেয়ারহোল্ডারদের ১৫ শতাংশ হারে ২০২ কোটি ৬ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ দেবে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১৯৮ কোটি ১৫ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ দেবে প্রাইম ব্যাংক। আর ব্যাংক এশিয়া দেবে তৃতীয় সর্বোচ্চ ১৭৪ কোটি ৮৯ লাখ টাকার নগদ লভ্যাংশ।

বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স এসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) সভাপতি ছায়েদুর রহমান অর্থ বাণিজ্যকে বলেন, কিছু কিছু ব্যাংক প্রত্যাশার থেকে বেশি নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। যা শেয়ারবাজারের জন্য সুখবর। ব্যাংকগুলোর এবারের নগদ লভ্যাংশে বাজারে গতি বৃদ্ধি করবে বলে যোগ করেন তিনি।

নিম্নে তালিকাভুক্ত ব্যাংকগুলোর ২০২৩ সালের ব্যবসায় ঘোষিত নগদ লভ্যাংশের পরিমাণ তুলে ধরা হল-

এ বছর শুধুমাত্র বোনাস শেয়ার ঘোষণা করেছে এ‌বি ব্যাংক ও আইএফআইসি ব্যাংক। আর লোকসান করা আইসিবি ইসলামিক ব্যাংক ও ন্যাশনাল ব্যাংক লভ্যাংশ ঘোষণা করেনি। এছাড়া মুনাফা সত্ত্বেও লভ্যাংশ ঘোষণা করেনি রূপালি ব্যাংক।

বিজনেস আওয়ার/০৬ মে/ এ এইচ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান: