1. [email protected] : Asim : Asim
  2. [email protected] : anis : anis
  3. [email protected] : Admin : Admin
  4. [email protected] : Nayan Babu : Nayan Babu
  5. [email protected] : Polash : Polash
  6. [email protected] : Rajowan : Rajowan
  7. [email protected] : Riyad : Riyad
  8. [email protected] : sattar miazi : sattar miazi
সৌদির আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি পেল ইসরায়েল
বুধবার, ২০ জানুয়ারী ২০২১, ১২:০৮ অপরাহ্ন

সৌদির আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি পেল ইসরায়েল

  • পোস্ট হয়েছে : মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর, ২০২০

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় বেশ কিছু আরব দেশের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিকের পথে হাঁটছে ইসরায়েল। ইতোমধ্যেই অনেক দেশের সঙ্গে চুক্তিও হয়েছে ইসরায়েলের। তারই ধারাবাহিকতায় ইসরায়েলকে নিজেদের আকাশসীমা ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে সৌদি আরব। ফলে এখন থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাতগামী ইসরায়েলের বিভিন্ন এয়ারলাইন্সের বিমান সৌদির আকাশপথ ব্যবহার করতে পারবে।

সংবাদ সংস্থা রয়টার্স এবং ইসরায়েলের বিভিন্ন গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জামাতা ও হোয়াইট হাউসের শীর্ষ উপদেষ্টা জেয়ার্ড কুশনারের সঙ্গে সৌদি কর্মকর্তাদের বৈঠকের পর ইসরায়েলি বিমান চলাচলে আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে সৌদি আরব।

কুশনার, যুক্তরাষ্ট্রে মধ্যপাচ্যের বিশেষ দূত আভি বেরকোয়িতজ এবং মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের শীর্ষ উপদেষ্টা ব্রায়ান হুক সৌদি আরবে পৌঁছানোর পর কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে প্রথমেই এ বিষয়টি তুলে ধরেন। সোমবার ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসনের এক কর্মকর্তা রয়টার্সকে বলেন, আমরা এ বিষয়টি মিটমাট করতে সক্ষম হয়েছি।

জেয়ার্ড কুশনার এবং তার একটি টিম সৌদি সফরের পর কাতারে যাবেন। প্রতিবেশী উপসাগরীয় দেশগুলোর মধ্যকার দীর্ঘদিনের সংকট সমাধানে ওই দুই দেশের সঙ্গে আলোচনা করবেন তারা। সাম্প্রতিক সময়ে নিজেদের মধ্যে সম্পর্ক স্বাভাবিক করতে সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন এবং সুদানের সঙ্গে সাম্প্রতিক সময়ে ইসরায়েলের চুক্তি হয়েছে।

চলতি সপ্তাহের শেষে কুশনার এবং তার একটি টিম কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানি এবং সৌদির ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে সাক্ষাত করবেন বলে জানানো হয়েছে।

প্রায় তিন বছর ধরে কাতারের সঙ্গে সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন এবং মিসর সব ধরনের সম্পর্ক ছিন্ন করেছে। উপসাগরীয় দেশগুলোর মধ্যকার এসব সংকট সমাধানকে কুশনারের এই সফরে সবচেয়ে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে বলে মার্কিন কর্মকর্তারা নিশ্চিত করেছেন।

বিজনেস আওয়ার/০১ ডিসেম্বর, ২০২০/কমা

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান:
এ বিভাগের আরো সংবাদ
lanka-bangla-ibroker-businesshour24