1. [email protected] : Asim : Asim
  2. [email protected] : anis : anis
  3. [email protected] : Admin : Admin
  4. [email protected] : Nayan Babu : Nayan Babu
  5. [email protected] : Polash : Polash
  6. [email protected] : Rajowan : Rajowan
  7. [email protected] : Riyad : Riyad
  8. [email protected] : sattar miazi : sattar miazi
সাহেদ সীমান্ত পাড়ি দেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন: র‍্যাব
বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ১২:৫৯ অপরাহ্ন

সাহেদ সীমান্ত পাড়ি দেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন: র‍্যাব

  • পোস্ট হয়েছে : বুধবার, ১৫ জুলাই, ২০২০

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান সাহেদ করিম বুধবার (১৫ জুলাই) ভোরে বোরকা পরে ছদ্মবেশে সীমান্ত পাড়ি দেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন। তখনই তাকে র‍্যাবের বিশেষ দল গ্রেফতার করে বলে জানান র‍্যাবের গণমাধ্যম শাখার পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আশিক বিল্লাহ।

তিনি বলেন, সাহেদের গ্রামের বাড়ি সাতক্ষীরায়। দেশের বিভিন্ন স্থানে বিশেষ করে সীমান্ত এলাকাগুলোয় র‍্যাবের গোয়েন্দা তৎপরতা ও বাড়তি নজরদারি ছিল। তারই ধারাবাহিকতায় আজ ভোর সাড়ে ৫টায় সাতক্ষীরার দেবহাটা সীমান্ত থেকে গ্রেফতার করা হয় তাকে।

গ্রেফতারের সময় সাহেদ করিম ওরফে মোহাম্মদ সাহেদ বোরকা পরে নৌকায় করে সীমান্ত পাড়ি দেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন। খবর পেয়ে আমাদের গোয়েন্দা পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল সারওয়ার বিন কাশেম তার নেতৃত্বে পরিচালিত অভিযানে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

তিনি আরও জানান, সাহেদ অত্যন্ত উঁচুমানের একজন প্রতারক। সে সব ধরনের প্রতারণার কৌশল অবলম্বন করে বিভিন্ন ট্রান্সপোর্ট পরিবর্তন করে সাতক্ষীরায় চলে যায়। ভোররাতে সে সীমান্ত অতিক্রম করার চেষ্টা করে। তার কাছ থেকে গুলি ভর্তি একটি বিদেশি পিস্তল উদ্ধার করা হয়েছে।

এদিন সকাল ৯টার দিকে তাকে ঢাকায় আনা হয়। সাতক্ষীরা থেকে র‍্যাবের অভিযান দল সাহেদ গ্রেফতার করে। পরে তাকে হেলিকপ্টার যোগে ঢাকায় আনা হয়। সাহেদকে বহনকারী হেলিকপ্টার বুধবার সকাল ৯টার দিকে ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট এলাকায় তেজগাঁও বিমানবন্দরে এসে পৌঁছে।

উল্লেখ্য, গত ৬ জুলাই র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলমের নেতৃত্বে রিজেন্ট হাসপাতালের উত্তরা ও মিরপুর কার্যালয়ে অভিযান চালানো হয়। পরীক্ষা ছাড়াই করোনার সনদ দিয়ে সাধারণ মানুষের সঙ্গে প্রতারণা ও অর্থ হাতিয়ে নিয়ে আসছিল তারা।

র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত অন্তত ছয় হাজার ভুয়া করোনা পরীক্ষার সনদ পাওয়ার প্রমাণ পায়। একদিন পর গত ৭ জুলাই স্বাস্থ্য অধিদফতরের নির্দেশে র‌্যাব রিজেন্ট হাসপাতাল ও তার মূল কার্যালয় সিলগালা করে দেয়। রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান সাহেদসহ ১৭ জনের বিরুদ্ধে ওই দিনই উত্তরা পশ্চিম থানায় নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়।

মঙ্গলবার (১৪ জুন) রিজেন্ট গ্রুপের এমডি মাসুদকে গাজীপুর থেকে গ্রেফতার করে র‍্যাব। এর আগে অর্থ আত্মসাতের মামলায় রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো. সাহেদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন আদালত।

সোমবার (১৩ জুলাই) ঢাকা চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মইনুল ইসলাম এই আদেশ দেন। দুটি পৃথক মামলায় এই আদেশ দেন আদালত। তিন কোটি ৬৮ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে এই মামলা দায়ের করে মাসুদ এন্টারপ্রাইজ।

এদিকে রাজধানীর উত্তরার ৬ নম্বর সেক্টরে রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান সাহেদের একটি ব্যক্তিগত কার্যালয় ঘিরে রেখেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)। জানা যায়, সাহেদের প্রতারণার তথ্য-প্রমাণ থাকতে পারে ওই কার্যালয়ে এজন্য ঘিরে রাখা হয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/১৫ জুলাই, ২০২০/এ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান:

শেয়ার দিয়ে সবাইকে দেখার সুযোগ করে দিন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
lanka-bangla-ibroker-businesshour24

রবির মুনাফা কমেছে

  • ২৭ জুলাই ২০২১