ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শীতে ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখবে যে ৫টি খাবার

  • পোস্ট হয়েছে : ১০:২৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৪ জানুয়ারী ২০২৩
  • 26

বিজনেস আওয়ার ডেস্ক: কাজ কিংবা বিভিন্ন প্রয়োজনে ঘর থেকে বাইরে বের হতে হয়ই। আর বাইরে বের হলেই শীত, ধুলোবালি, দূষণ। যার প্রভাব পড়ে আমাদের ত্বকেও। ফলে ফর্সা ত্বকও অনেক সময় কালচে হতে শুরু করে। সঠিক যত্নের অভাব, সঠিক খাবার না খাওয়া এসবও আমাদের ত্বকে প্রভাব ফেলতে পারে। সব মিলিয়ে আপনি হারিয়ে ফেলেন আপনার ফর্সা ত্বক। তাই ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে চাইলে সঠিক যত্নের পাশাপাশি খেতে সঠিক খাবারও। এমনকিছু খাবার রয়েছে যেগুলো আমাদের ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে কাজ করে। চলুন জেনে নেওয়া যাক-

ফল বা সবজির রস
বিভিন্ন শাক-সবজি ও ফলের জুস বা স্মুদি ত্বকের ভারসম্য বজায় রাখতে এবং পুষ্টি সরবরাহে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখে। এগুলো তৈরি করা খুব সহজ এবং দীর্ঘ সময় পেট ভরিয়ে রাখে। ফলে অন্যান্য মুখরোচক খাবারের প্রতি ঝোঁক কমে। কমলার জুস, ডালিমের জুস বা শসা, বিটরূট এবং কলা দিয়ে বানানো স্মুদি স্বাস্থ্য ও ত্বকের জন্য বেশ ভালো, সেইসঙ্গে খেতেও বেশ সুস্বাদু। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ব্যপার হলো, এই খাবার গুলো প্রক্রিয়াজাতকরণ ও প্রিজার্ভেটিভ মুক্ত যা স্বাস্থ্য ও ত্বকের জন্য ভালো।

সবুজ শাক-সবজি
সবুজ শাক-সবজি ত্বকের জন্য খুব উপকারী। এ ধরনের শাক-সবজি ভিটামিন এ, জিঙ্ক, আয়রন, পটাসিয়াম, ম্যাগনেসিয়ামসহ বিভিন্ন পুষ্টি উপাদানে সমৃদ্ধ। এগুলো শরীরের অভ্যন্তরীণ প্রক্রিয়াকে পরিষ্কার রাখে। পালং শাক, ব্রোকলি, পেঁয়াজ কলি, সেলারি এবং শসা ত্বকে অক্সিজেন পৌঁছে দেয়। এ ধরনের শাক-সবজি প্রতিদিন খাবারের তালিকায় রাখলে ত্বকের লাবণ্য বৃদ্ধি পাবে।

ড্রাই ফ্রুটস
ড্রাই ফ্রুটস যেমন বাদাম, কিশমিশ, খেজুর, আখরোট ও কাজু স্বাস্থ্য এবং ত্বকের জন্য উপকারী। কারণ এগুলোতে থাকে প্রয়োজনীয় ভিটামিন এবং মিনারেল। সেইসঙ্গে আরও থাকে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট যা ত্বককে ফ্রি র‍্যাডিক্যাল থেকে মুক্ত রাখে। এ ধরনের খাবার কোলাজেন বৃদ্ধি করে ত্বকের লাবণ্য বাড়াতেও সাহায্য করে। প্রতিদিনের খাবারে এগুলো গ্রহণ করলে ত্বক হবে সুন্দর আর লাবণ্যময়।

আদা ও লেবু
লেবু শরীরের ডিটক্সিফাইয়ের জন্য বেশ পরিচিত। এটি ত্বকের টক্সিন বের করে ত্বককে সুন্দর করতে সাহায্য করে। সেইসঙ্গে হজমের সমস্যাও দূর করে। অন্যদিকে আদা অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে ভরপুর এবং ত্বকে রক্ত সঞ্চালন বাড়ায়। যার ফলে ত্বক হয় সুস্থ ও উজ্জ্বল। সকালে হালকা গরম পানি, কয়েক ফোঁটা লেবুর রস এবং আদার রস একসঙ্গে মিশিয়ে ডিটক্স পানীয় পান করলে উপকার পাবেন। অথবা আদা ও লেবু মিশিয়ে চা-ও পান করতে পারেন। এ ধরনের পানীয় স্বাস্থ্য ও ত্বকের জন্য ভালো।

ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ফল
ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ফল ত্বকের স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারী। এসব ফল যেমন কমলা, আপেল, তরমুজ এবং স্ট্রবেরি শরীরকে হাইড্রেট করতে এবং ত্বককে কোমল ও সতেজ রাখতে সাহায্য করে। এছাড়াও, এ ধরনের ফলর মধ্যে রয়েছে ডায়েটারি ফাইবার এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা ত্বকের ক্ষতি থেকে রক্ষা করে। ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে চাইলে এই ফলগুলো প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় যোগ করুন।

বিজনেস আওয়ার/০৪ জানুয়ারি, ২০২৩/এএইচএ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান:
ট্যাগ :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার মেইলে তথ্য জমা করুন

শীতে ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখবে যে ৫টি খাবার

পোস্ট হয়েছে : ১০:২৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৪ জানুয়ারী ২০২৩

বিজনেস আওয়ার ডেস্ক: কাজ কিংবা বিভিন্ন প্রয়োজনে ঘর থেকে বাইরে বের হতে হয়ই। আর বাইরে বের হলেই শীত, ধুলোবালি, দূষণ। যার প্রভাব পড়ে আমাদের ত্বকেও। ফলে ফর্সা ত্বকও অনেক সময় কালচে হতে শুরু করে। সঠিক যত্নের অভাব, সঠিক খাবার না খাওয়া এসবও আমাদের ত্বকে প্রভাব ফেলতে পারে। সব মিলিয়ে আপনি হারিয়ে ফেলেন আপনার ফর্সা ত্বক। তাই ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে চাইলে সঠিক যত্নের পাশাপাশি খেতে সঠিক খাবারও। এমনকিছু খাবার রয়েছে যেগুলো আমাদের ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে কাজ করে। চলুন জেনে নেওয়া যাক-

ফল বা সবজির রস
বিভিন্ন শাক-সবজি ও ফলের জুস বা স্মুদি ত্বকের ভারসম্য বজায় রাখতে এবং পুষ্টি সরবরাহে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখে। এগুলো তৈরি করা খুব সহজ এবং দীর্ঘ সময় পেট ভরিয়ে রাখে। ফলে অন্যান্য মুখরোচক খাবারের প্রতি ঝোঁক কমে। কমলার জুস, ডালিমের জুস বা শসা, বিটরূট এবং কলা দিয়ে বানানো স্মুদি স্বাস্থ্য ও ত্বকের জন্য বেশ ভালো, সেইসঙ্গে খেতেও বেশ সুস্বাদু। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ব্যপার হলো, এই খাবার গুলো প্রক্রিয়াজাতকরণ ও প্রিজার্ভেটিভ মুক্ত যা স্বাস্থ্য ও ত্বকের জন্য ভালো।

সবুজ শাক-সবজি
সবুজ শাক-সবজি ত্বকের জন্য খুব উপকারী। এ ধরনের শাক-সবজি ভিটামিন এ, জিঙ্ক, আয়রন, পটাসিয়াম, ম্যাগনেসিয়ামসহ বিভিন্ন পুষ্টি উপাদানে সমৃদ্ধ। এগুলো শরীরের অভ্যন্তরীণ প্রক্রিয়াকে পরিষ্কার রাখে। পালং শাক, ব্রোকলি, পেঁয়াজ কলি, সেলারি এবং শসা ত্বকে অক্সিজেন পৌঁছে দেয়। এ ধরনের শাক-সবজি প্রতিদিন খাবারের তালিকায় রাখলে ত্বকের লাবণ্য বৃদ্ধি পাবে।

ড্রাই ফ্রুটস
ড্রাই ফ্রুটস যেমন বাদাম, কিশমিশ, খেজুর, আখরোট ও কাজু স্বাস্থ্য এবং ত্বকের জন্য উপকারী। কারণ এগুলোতে থাকে প্রয়োজনীয় ভিটামিন এবং মিনারেল। সেইসঙ্গে আরও থাকে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট যা ত্বককে ফ্রি র‍্যাডিক্যাল থেকে মুক্ত রাখে। এ ধরনের খাবার কোলাজেন বৃদ্ধি করে ত্বকের লাবণ্য বাড়াতেও সাহায্য করে। প্রতিদিনের খাবারে এগুলো গ্রহণ করলে ত্বক হবে সুন্দর আর লাবণ্যময়।

আদা ও লেবু
লেবু শরীরের ডিটক্সিফাইয়ের জন্য বেশ পরিচিত। এটি ত্বকের টক্সিন বের করে ত্বককে সুন্দর করতে সাহায্য করে। সেইসঙ্গে হজমের সমস্যাও দূর করে। অন্যদিকে আদা অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে ভরপুর এবং ত্বকে রক্ত সঞ্চালন বাড়ায়। যার ফলে ত্বক হয় সুস্থ ও উজ্জ্বল। সকালে হালকা গরম পানি, কয়েক ফোঁটা লেবুর রস এবং আদার রস একসঙ্গে মিশিয়ে ডিটক্স পানীয় পান করলে উপকার পাবেন। অথবা আদা ও লেবু মিশিয়ে চা-ও পান করতে পারেন। এ ধরনের পানীয় স্বাস্থ্য ও ত্বকের জন্য ভালো।

ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ফল
ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ফল ত্বকের স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারী। এসব ফল যেমন কমলা, আপেল, তরমুজ এবং স্ট্রবেরি শরীরকে হাইড্রেট করতে এবং ত্বককে কোমল ও সতেজ রাখতে সাহায্য করে। এছাড়াও, এ ধরনের ফলর মধ্যে রয়েছে ডায়েটারি ফাইবার এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা ত্বকের ক্ষতি থেকে রক্ষা করে। ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে চাইলে এই ফলগুলো প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় যোগ করুন।

বিজনেস আওয়ার/০৪ জানুয়ারি, ২০২৩/এএইচএ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান: