ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নতুন নিয়মে শুরু হচ্ছে চার-ছক্কার আইপিএল

  • পোস্ট হয়েছে : ০১:২৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩
  • 18

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : নতুন নিয়মে শুরু হচ্ছে চার-ছক্কার ধুন্ধুমার আসর আইপিএল। বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় উদ্বোধনী দিনে মুখোমুখি হচ্ছে গুজরাট লায়ন্স ও মাহেন্দ্র সিং ধোনির চেন্নাই সুপার কিংস। সরাসরি দেখা যাবে স্টার স্পোর্টসে। দুই মাসব্যাপী এবারের আইপিএলে আকর্ষণীয় পাঁচ নতুন নিয়ম থাকছে। চলুন দেখে নেওয়া যাক নতুন নিয়মগুলো।

নিয়মগুলো হলো- আগের আসরগুলোতে টসের আগেই ম্যাচ রেফারির কাছে সেরা একাদশ জমা দিতে হতো অধিনায়কদ্বয়কে। কিন্তু নতুন নিয়মে এবার টস হওয়ার পর দলগুলো তাদের সেরা একাদশ জমা দিবে ম্যাচ রেফারির কাছে; এবারের আসরে ম্যাচের যেকোনো সময় বদলি খেলোয়াড় (ইম্প্যাক্ট প্লেয়ার/ট্যাকটিক্যাল সাবস্টিটিউশন) নামানো যাবে। আর এই বদলি খেলোয়াড় ব্যাটিং, বোলিং ও ফিল্ডিংও করতে পারবেন। কেবল অধিনায়কত্ব করতে পারবেন না; আগে কেবল আউটের ক্ষেত্রে ডিআরএস ব্যবহার করা হতো। কিন্তু ২০২৩ আইপিএলে ওয়াইড এবং নো বলের জন্যও থাকছে ডিআরএস। ধারণা করা হচ্ছে এর ফলে আইপিএলের ম্যাচগুলোতে অনেক বিতর্ক এড়ানো যাবে; বল করার আগে উইকেটরক্ষক যদি এলেমোলো আচরণ কিংবা নড়াচড়া করেন তাহলে তাকে শাস্তির আওতায় আনা যাবে। এমনটি ঘটলে আম্পায়ার চাইলে বলটিকে ডেড বল ঘোষণা করতে পারবেন কিংবা চাইলে ৫ রান পেনাল্টিও দিতে পারবেন। একই বিষয় ফিল্ডারদের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য হবে; স্লো ওভার রেটের জন্য এবারের আসরে থাকবে সঙ্গে সঙ্গে জরিমানা। ২০ ওভার নির্ধারিত ৯০ মিনিটের মধ্যেই শেষ করতে হবে। কোনো দল যদি সেটা করতে ব্যর্থ হয় তাহলে বাকি সময় একজন ফিল্ডারকে ৩০ গজ বৃত্তের মধ্যে রাখতে হবে, যতক্ষণ না ওভার শেষ হবে।

এবারের আসরে দশটি ফ্র্যাঞ্চাইজি অংশ নিবে। ২০১৯ সালের পর এবারই প্রথম আইপিএল হতে যাচ্ছে হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে। গেল মৌসুমের মতো এবারও দলগুলোকে দুটি গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে। এ গ্রুপে আছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স, কলকাতা নাইট রাইডার্স, রাজস্থান রয়্যালস, দিল্লি ক্যাপিটালস ও লক্ষ্ণৌ সুপার জায়ান্টস। অন্যদিকে বি গ্রুপে আছে চেন্নাই সুপার কিংস, রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু, গুজরাট টাইটান্স, পাঞ্জাব কিংস ও সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। একটি দল নিজ গ্রুপের প্রত্যেক দলের সঙ্গে একবার করে এবং অন্য গ্রুপের দলগুলোর সঙ্গে দুইবার করে খেলবে। এভাবে প্রত্যেকটি দল মোট ১৪টি করে ম্যাচ খেলবে। আজ (শুক্রবার থেকে ২১ মে পর্যন্ত ৫২ দিনে ১২টি শহরে গ্রুপপর্বে মোট ৭০টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

বিজনেস আওয়ার/৩১ মার্চ, ২০২৩/এমএজেড

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান:
ট্যাগ :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার মেইলে তথ্য জমা করুন

নতুন নিয়মে শুরু হচ্ছে চার-ছক্কার আইপিএল

পোস্ট হয়েছে : ০১:২৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : নতুন নিয়মে শুরু হচ্ছে চার-ছক্কার ধুন্ধুমার আসর আইপিএল। বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় উদ্বোধনী দিনে মুখোমুখি হচ্ছে গুজরাট লায়ন্স ও মাহেন্দ্র সিং ধোনির চেন্নাই সুপার কিংস। সরাসরি দেখা যাবে স্টার স্পোর্টসে। দুই মাসব্যাপী এবারের আইপিএলে আকর্ষণীয় পাঁচ নতুন নিয়ম থাকছে। চলুন দেখে নেওয়া যাক নতুন নিয়মগুলো।

নিয়মগুলো হলো- আগের আসরগুলোতে টসের আগেই ম্যাচ রেফারির কাছে সেরা একাদশ জমা দিতে হতো অধিনায়কদ্বয়কে। কিন্তু নতুন নিয়মে এবার টস হওয়ার পর দলগুলো তাদের সেরা একাদশ জমা দিবে ম্যাচ রেফারির কাছে; এবারের আসরে ম্যাচের যেকোনো সময় বদলি খেলোয়াড় (ইম্প্যাক্ট প্লেয়ার/ট্যাকটিক্যাল সাবস্টিটিউশন) নামানো যাবে। আর এই বদলি খেলোয়াড় ব্যাটিং, বোলিং ও ফিল্ডিংও করতে পারবেন। কেবল অধিনায়কত্ব করতে পারবেন না; আগে কেবল আউটের ক্ষেত্রে ডিআরএস ব্যবহার করা হতো। কিন্তু ২০২৩ আইপিএলে ওয়াইড এবং নো বলের জন্যও থাকছে ডিআরএস। ধারণা করা হচ্ছে এর ফলে আইপিএলের ম্যাচগুলোতে অনেক বিতর্ক এড়ানো যাবে; বল করার আগে উইকেটরক্ষক যদি এলেমোলো আচরণ কিংবা নড়াচড়া করেন তাহলে তাকে শাস্তির আওতায় আনা যাবে। এমনটি ঘটলে আম্পায়ার চাইলে বলটিকে ডেড বল ঘোষণা করতে পারবেন কিংবা চাইলে ৫ রান পেনাল্টিও দিতে পারবেন। একই বিষয় ফিল্ডারদের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য হবে; স্লো ওভার রেটের জন্য এবারের আসরে থাকবে সঙ্গে সঙ্গে জরিমানা। ২০ ওভার নির্ধারিত ৯০ মিনিটের মধ্যেই শেষ করতে হবে। কোনো দল যদি সেটা করতে ব্যর্থ হয় তাহলে বাকি সময় একজন ফিল্ডারকে ৩০ গজ বৃত্তের মধ্যে রাখতে হবে, যতক্ষণ না ওভার শেষ হবে।

এবারের আসরে দশটি ফ্র্যাঞ্চাইজি অংশ নিবে। ২০১৯ সালের পর এবারই প্রথম আইপিএল হতে যাচ্ছে হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে। গেল মৌসুমের মতো এবারও দলগুলোকে দুটি গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে। এ গ্রুপে আছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স, কলকাতা নাইট রাইডার্স, রাজস্থান রয়্যালস, দিল্লি ক্যাপিটালস ও লক্ষ্ণৌ সুপার জায়ান্টস। অন্যদিকে বি গ্রুপে আছে চেন্নাই সুপার কিংস, রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু, গুজরাট টাইটান্স, পাঞ্জাব কিংস ও সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। একটি দল নিজ গ্রুপের প্রত্যেক দলের সঙ্গে একবার করে এবং অন্য গ্রুপের দলগুলোর সঙ্গে দুইবার করে খেলবে। এভাবে প্রত্যেকটি দল মোট ১৪টি করে ম্যাচ খেলবে। আজ (শুক্রবার থেকে ২১ মে পর্যন্ত ৫২ দিনে ১২টি শহরে গ্রুপপর্বে মোট ৭০টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

বিজনেস আওয়ার/৩১ মার্চ, ২০২৩/এমএজেড

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান: