ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

তালিকাভুক্ত ও অতালিকাভুক্ত কোম্পানির করহার ব‍্যবধান অবশ‍্যই বাড়ানো দরকার: পরিকল্পনা মন্ত্রী

  • পোস্ট হয়েছে : ১২:২৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ৪ জুন ২০২৩
  • 18

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান বলেছেন, তালিকাভুক্ত ও অতালিকাভুক্ত কোম্পানির করহার ব‍্যবধান অবশ‍্যই বাড়ানো দরকার। এতে ভালো কোম্পানি শেয়ারবাজারে আসবে।

রবিবার (৪ জুন) সকাল সাড়ে ১০ টায় ক্যাপিটাল মার্কেট জার্নালিস্টস ফোরাম (সিএমজেএফ) ও বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) যৌথ উদ্যোগে সিএসজেএফ অডিটরিয়ামে বাজেট পরবর্তী আলোচনা সভায় এই কথা বলেন তিনি।

সভার শিরোনাম ‘ বাজেট ২০২৩-২৪: প্রেক্ষিত পুঁজিবাজার’। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান। এছাড়াও ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের চেয়ারম্যান ড. হাফিজ মো. হাসান বাবু, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের চেয়ারম্যান আসিফ ইব্রাহীম, বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) সভাপতি মো. ছায়েদুর রহমান, ডিবিএ প্রেসিডেন্ট রিচার্ড ডি রোজারিও এবং সিএমজেএফ সভাপতি জিয়াউর রহমান বক্তব্য রাখেন।

মন্ত্রী বলেন, লভ্যাংশে দ্বৈতকর প্রত‍্যাহারের যে দাবি করা হয়েছে, তা গভীরভাবে দেখতে হবে। এছাড়া ব্রোকারেজ হাউজগুলোর এআইটি নিয়ে তোলা দাবির বিষয়টি আগেও শুনেছি। এটি হয়তো চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। যাহোক আজকে যেসব দাবি করা হয়েছে, সেগুলো আমি সঠিক জায়গায় পাঠিয়ে দেব।

অনুষ্ঠানে ছায়েদুর রহমান বলেন, ব‍্যাংক নির্ভর হয়ে উন্নত দেশ হওয়া যাবে না। বিশ্বের সব দেশই শেয়ারবাজারকে সামনে রেখে উন্নত হয়েছে। আমাদেরকেও শেয়ারবাজারকে এগিয়ে নিতে হবে।

তিনি বলেন, এই বাজারকে এগিয়ে নিতে লভ‍্যাংশে দ্বৈত কর প্রত‍্যাহার করতে হবে। এছাড়া তালিকাভুক্ত ও অতালিকাভুক্ত কোম্পানির কর ব‍্যবধান বাড়াতে হবে। এটা কমপক্ষে ১৫℅ করা দরকার। এতে করে ভালো কোম্পানি শেয়ারবাজারে আসবে।

তিনি আরও বলেন, মার্চেন্ট ব‍্যাংকগুলো খুবই দূর্বল। এগুলো ব‍্যাংকিং কার্যক্রম করে না। কিন্তু মার্চেন্ট ব‍্যাংক নাম হওয়ায় ব‍্যাংকের ন‍্যায় ৩৭.৫০℅ কর দিতে হয়। এটা সমাধান করা দরকার।

বিজনেস আওয়ার/০৪ জুন/আরএ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান:
ট্যাগ :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার মেইলে তথ্য জমা করুন

তালিকাভুক্ত ও অতালিকাভুক্ত কোম্পানির করহার ব‍্যবধান অবশ‍্যই বাড়ানো দরকার: পরিকল্পনা মন্ত্রী

পোস্ট হয়েছে : ১২:২৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ৪ জুন ২০২৩

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান বলেছেন, তালিকাভুক্ত ও অতালিকাভুক্ত কোম্পানির করহার ব‍্যবধান অবশ‍্যই বাড়ানো দরকার। এতে ভালো কোম্পানি শেয়ারবাজারে আসবে।

রবিবার (৪ জুন) সকাল সাড়ে ১০ টায় ক্যাপিটাল মার্কেট জার্নালিস্টস ফোরাম (সিএমজেএফ) ও বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) যৌথ উদ্যোগে সিএসজেএফ অডিটরিয়ামে বাজেট পরবর্তী আলোচনা সভায় এই কথা বলেন তিনি।

সভার শিরোনাম ‘ বাজেট ২০২৩-২৪: প্রেক্ষিত পুঁজিবাজার’। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান। এছাড়াও ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের চেয়ারম্যান ড. হাফিজ মো. হাসান বাবু, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের চেয়ারম্যান আসিফ ইব্রাহীম, বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) সভাপতি মো. ছায়েদুর রহমান, ডিবিএ প্রেসিডেন্ট রিচার্ড ডি রোজারিও এবং সিএমজেএফ সভাপতি জিয়াউর রহমান বক্তব্য রাখেন।

মন্ত্রী বলেন, লভ্যাংশে দ্বৈতকর প্রত‍্যাহারের যে দাবি করা হয়েছে, তা গভীরভাবে দেখতে হবে। এছাড়া ব্রোকারেজ হাউজগুলোর এআইটি নিয়ে তোলা দাবির বিষয়টি আগেও শুনেছি। এটি হয়তো চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। যাহোক আজকে যেসব দাবি করা হয়েছে, সেগুলো আমি সঠিক জায়গায় পাঠিয়ে দেব।

অনুষ্ঠানে ছায়েদুর রহমান বলেন, ব‍্যাংক নির্ভর হয়ে উন্নত দেশ হওয়া যাবে না। বিশ্বের সব দেশই শেয়ারবাজারকে সামনে রেখে উন্নত হয়েছে। আমাদেরকেও শেয়ারবাজারকে এগিয়ে নিতে হবে।

তিনি বলেন, এই বাজারকে এগিয়ে নিতে লভ‍্যাংশে দ্বৈত কর প্রত‍্যাহার করতে হবে। এছাড়া তালিকাভুক্ত ও অতালিকাভুক্ত কোম্পানির কর ব‍্যবধান বাড়াতে হবে। এটা কমপক্ষে ১৫℅ করা দরকার। এতে করে ভালো কোম্পানি শেয়ারবাজারে আসবে।

তিনি আরও বলেন, মার্চেন্ট ব‍্যাংকগুলো খুবই দূর্বল। এগুলো ব‍্যাংকিং কার্যক্রম করে না। কিন্তু মার্চেন্ট ব‍্যাংক নাম হওয়ায় ব‍্যাংকের ন‍্যায় ৩৭.৫০℅ কর দিতে হয়। এটা সমাধান করা দরকার।

বিজনেস আওয়ার/০৪ জুন/আরএ

ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার মতামত জানান: